রাউজান নিউজ

তাপমাত্রা কমা নিয়ে সুসংবাদ দিল আবহাওয়া অধিদপ্তর

রাউজান নিউজ ডেস্ক ঃ

তাপমাত্রা কমা নিয়ে সুসংবাদ দিলেন আবহাওয়া অধিদপ্তর। বৈশাখ-জ্যৈষ্ঠ ছিল বৃষ্টিমুখর, সূর্য ছিল মেঘের আড়ালে। আর শ্রাবণে এসে সূর্যের তেজে টেকা হলো দায়। কয়েক দিনের কাঠফাটা রোদ প্রকৃতিতে অস্বস্তির মাত্রা বাড়িয়ে দিয়েছে। সব মিলিয়ে বাংলা ঋতুর বর্ষায় বৃষ্টির পরিবর্তে ঢাকাসহ সারাদেশে বয়ে চলছে মৃদ থেকে মাঝারি ধরনের তাপ প্রবাহ।

আবহাওয়া অধিদপ্তর জানিয়েছে, শুক্রবার (২০-জুলাই) থেকে তাপমাত্রা কিছুটা কমবে। তবে অস্বস্তি ঘুচবে না। শনিবারের পর থেকে বৃষ্টির মাত্রা বাড়তে পারে।

গত বৃহস্পতিবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল কুড়িগ্রামের রাজারহাটে ৩৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এছাড়া রাজধানী ঢাকায় ছিল ৩৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। চলতি বছরের ঢাকায় এটিই সর্বোচ্চ তাপমাত্রা। তবে আশার কথা হলো- বয়ে চলা এ মৃদ তাপ প্রবাহ হ্রাস পাবে।

আবহাওয়া অফিস বলছে, কুমিল্লা ও নোয়াখালী অঞ্চলসহ সন্দ্বীপ ও সীতাকুণ্ডের কোথাও কোথাও এবং ঢাকা, ময়মনসিংহ, সিলেট, রাজশাহী, রংপুর, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের উপর দিয়ে বয়ে চলা মৃদ ও মাঝারি ধরনের তাপ প্রবাহ প্রশমিত হবে। একই সঙ্গে সারাদেশে দিনের তাপমাত্রা ১ থেক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পাবে।

বর্ষাকালে টানা কয়েক দিন বৃষ্টি না হওয়ায় তাপমাত্রা বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানান আবহাওয়াবিদ বজলুর রশিদ। তিনি বলেন, বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। এ কারণে ওপরের দিকে (স্থলভাগে) বৃষ্টি হচ্ছে না। টানা কয়েক দিন বৃষ্টি না হওয়ার কারণে তাপমাত্রা বেড়েছে।

বজলুর রশিদ আরও জানান, এখন দেশের প্রায় সব এলাকার ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি মাত্রার দাবদাহ বয়ে যাচ্ছে। এ ছাড়া বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ বেশি থাকায় শরীর থেকে ঘাম ঝরছে এবং মানুষের অস্বস্তি লাগছে। আজ থেকে তাপমাত্রা কিছুটা কমবে। রোববার থেকে বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।