রাউজান নিউজ

মৌলভী হাফিজুর রহমান বিএবিটির নামে রাউজানে সড়কের নামকরণ

 মীর আসলাম(রাউজাননিউজ)

রাউজান উপজেলার মোহাম্মদপুর গ্রামের প্রয়াত শিক্ষাবিদ আধ্যাতিক পুরুষ মৌলভী হাফিজুর রহমান বিএবিটির নামে ওই গ্রামের একটি সড়কের নামকরণ করা হয়েছে। ৪ মে শুক্রবার সড়কটির নাম ফলক উম্মোচন করেন রাউজান ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বিএম জসিম উদ্দিন হিরু। সড়কটি উদ্বোধনের আগে রেলপথ মন্ত্রনালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি উদ্বোধকের মোঠোফোনে লড স্পীকারে অনুষ্ঠানের সমবেত জনসাধারণের উদ্দেশ্যে বলেন রাউজানের গুনিজনদের স্মরণীয় করার এই ধরণের উদ্যোগ অব্যাহত থাকে। উদ্বোধক এর আগে তার বক্তব্যে বলেন সাংসদ ফজলে করিম চৌধুরী উপজেলার প্রয়াত গুনিদের স্মরণীয় করে রাখতে বিভিন্ন এলাকায় তাদের নামে প্রতিষ্ঠান, তোরণ ও সড়কের নামকরণ করে আসছেন। মৌলভী হাফিজুর রহমান সড়কের নামকরণ এই ধারাবাহিকতার অংশ। তরুণ সংগঠক ও লেখক শাহাবউদ্দিন আহমদের সঞ্চালনায় এই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন এশিয়া ইন্সুরেন্স কোম্পানীর ভিপি মোহাম্মদ আলী এম,কম, রাউজান হাইস্কুলের সিনিয়র শিক্ষক খোন্দকার মোহাম্মদ আলী, মদিনা ইসলামী মিশন বাংলাদেশের চেয়ারম্যান মওলানা নিজামউদ্দিন আশরাফি। মরহুম মৌলভী হাফিজুর রহমান বিএবিটি’র পুত্র, পদ্মা অয়েল কোম্পানীর অবসরপ্রাপ্ত ম্যানেজার মুসলেহ্উদ্দিন মুহম্মদ বদরুল তাঁর পিতার নামে সড়কের নামকরণ করায় জননেতা এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী এমপি, ইউপি চেয়ারম্যান বিএম জসিমউদ্দিন হিরু, ইউপি সদস্যবৃন্দের নিকট পরিবারের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

এখানে অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন এলাকার প্রবীণ ব্যক্তিত্ব মোহাম্মদ আবুল খায়ের, সমাজসেবক আবু মোহাম্মদ খালেদ, রাউজান বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যাপক সেলিম নেওয়াজ চৌধুরী, গাছবাড়ীয়া সরকারী ডিগ্রী কলেজের অধ্যাপক কামরুল ইসলাম সেলিম, অধ্যাপক আজম খান, বেদারুল ইসলাম, ওয়ান ব্যাংকের এভিপি নাজিউদ্দিন, মরহুম হাফিজুর রহমানের পুত্রদের মধ্যে পদ্মা অয়েল কোম্পনীর অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু হেনা এমএ হাসান, আলহাজ্ব সরোয়ারউদ্দিন মুহম্মদ খসরু, ব্যবসায়ী আলহাজ্ব হেলালউদ্দিন মুহম্মদ কামরুল, নাতী এডভোকেট মঈনুল আলম চৌধুরী টিপু, শিক্ষক শামসুল হুদা, মোহাম্মদ সরোয়ার, আলহাজ্ব নিজামউদ্দিন, মাসুদুর রহমান চৌধুরী, ফোরকান মেম্বার, জহির উদ্দিন মেম্বার, আলতাফ হোসেন, আবদুল সালাম, সারজু মোহাম্মদ নাসের, শওকত হোসেন, ইসহাক ইসলাম, জিল্লুর রহমান মাসুদ, এনামুল হক এনাম, হেলাল হুমায়ুন, হাসান মোহাম্মদ রাশেদ, মহিউদ্দিন জিলানী, মওলানা ছালেহ্ জহুর, হাফেজ সওদাগর, এজাবতউল্লাহ্ সওদাগর, সেকান্দর সুমন, রফিকুল আনোয়ার, সিরাজুদ্দৌলা, আলমগীর, রুস্তমগীর, মানবাধিকার কর্মী করিম, তানভিরুল ইসলাম, তাওসিফ, সাকিব, বায়জিদ হাফিজ, জুনায়েদ হাফিজ, জুবায়ের হাফিজ প্রমূখ। অনুষ্ঠানে মুনাজাত পরিচালনা করেন খতীব মওলানা আবদুল্লাহ্ আল ফারুক।