রাউজান নিউজ

রাউজানে বিপন্ন লজ্জাবতী বানরটিকে বনে অবমুক্ত

হাবিবুর রহমান (রাউজান নিউজ)ঃ

রাউজানের ডাবুয়া ইউনিয়নে ধরা পড়া দুর্লভ লজ্জাবতী বানরটিকে বনে অবমুক্ত করা হয়েছে। ৩০ আগস্ট বুধবার উপজেলার ঢালারমূখ এলাকার বনে এটিকে অবমুক্ত করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন রাউজান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শামীম হোসেন রেজা, রাউজান বন কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ, রাউজান পৌরসভার প্যানেল মেয়র জমির উদ্দিন পারভেজ, মো. আরিফুল হক চৌধুরী, দিপলু দে দিপু, জিল্লু রহমান মাসুদ, মোরশেদ, জামশেদ, আরমান সিকদার, নয়ন, অনিক, অভি প্রমূখ।


জানা গেছে, গত সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার ডাবুয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের নুর আহম্মদ ছোবাহান বাড়িতে বানরটি ধরা পড়ে। বানরটি উচ্চতায় এক ফুট, লম্বায় প্রায় দেড় ফুট। গায়ের সাদা রংগের উপর পিঠে বাদামি রং। চোখ দুটি দেখতে বিড়ালের মতো ও ঘোলাটে। স্থানীয় সূত্র মতে, একটি সুপারি গাছে উঠতে দেখে স্থানীয় যুবক আকতারুল আলম সাকের সে বাড়ির ওই এলাকার টিপু সুলতান, ইমরান হোসেন বিপলু, রোকন, শাহাদাত হোসেন মনা, নাঈম, মো. জাবেদকে নিয়ে বানরটি ধরে ফেলে। পরে রাউজান উপজেলার গিরি ছায়া নামক মিনি চিড়িয়াখানায় হস্তান্তর করে।
উল্লেখ্য, আন্তর্জাতিক প্রকৃতি ও প্রাকৃতিক সম্পদ সংরক্ষণ সংঘের (আইইউসিএন) লাল তালিকায় রয়েছে বিপন্ন লজ্জাবতী বানর। এটি বাংলাদেশের ১৯৭৪ ও ২০০২ সালের বন্য প্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের তফসিল অনুযায়ী এ প্রজাতিটি সংরক্ষিত প্রাণী।
এ প্রসঙ্গে রাউজান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বলেন, ‘বন্যরা বনে সুন্দর, শিশুরা মাতৃক্রোড়ে’ অর্থাৎ যে যেখানে থাকার কথা সেখানেই ভালো মানায়। তাই অতি বিপন্ন লজ্জাবতী বানরটি গিরি ছায় নামক মিনি চিড়িয়াখানা থেকে নিয়ে ঢালারমূখ এলাকার গহীন বনে অবমুক্ত করেছি।’